করোনা আক্রান্তদের আইসোলেশনে নিজের বাড়ি ছেড়ে দিচ্ছেন গায়িকা ন্যান্সি

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত মানুষের সেবা এবং রোগীদের আইসোলেশনে রাখতে নিজের বাড়ি ছেড়ে দেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন দেশের জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী নাজমুন মুনিরা ন্যান্সি। সোমবার বিকেলে বিষয়টি জানান তিনি।

ন্যান্সি বলেন, নেত্রকোণায় নিজের একটি ডুপ্লেক্স বাড়ি আছে তার। সেই বাড়িটি করোনা রোগী কিংবা করোনা যোদ্ধাদের জন্য ছেড়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। যেহেতু বর্তমানে দেশ একটি কঠিন সময় পার করছে। তাই প্রশাসন জনস্বার্থে তাদের প্রয়োজন অনুযায়ী বাড়িটি ব্যবহার করতে পারে।

বাড়িটি কীভাবে কাজে লাগবে এমন প্রশ্নের জবাবে ন্যান্সি বলেন, এ বিষয়ে নেত্রকোণা জেলা প্রশাসক মঈনউল ইসলামের সাথে কথা হয়েছে। তিনি কিভাবে বাড়িটি কাজে লাগাবেন তা আমাকে জানাবেন। আমি বলেছি, এই বাড়িটি করোনা যোদ্ধা চিকিৎসকদের থাকার জন্য কাজে লাগাতে পারেন। আবার অনেকের আইসোলেশনে জায়গা হচ্ছে না সেক্ষেত্রে তারা এই বাড়িটিকে কাজে লাগাতে পারে। এছাড়া চাইলে করোনাভাইরাসের সংবাদ সংগ্রহে নিয়োজিত সাংবাদিকগণও এখানে থাকতে পারেন।

ন্যান্সি আরো বলেন, আমরা একটি যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছি। এই যুদ্ধ কতদিন চলবে তা কেউ বলতে পারব না। দেশের মানুষ আজ অসহায়। খাদ্যের জন্য হাহাকার, সুচিকিৎসার অভাব। এই দুঃসময়ে মানুষের পাশে দাঁড়ানো উচিত। শুধু বাড়ি না, আমার গাড়িটাও দিয়েছি এই মানবতার সেবায়। যতদিন না পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে ততদিন বাড়িটি করোনা যোদ্ধারা ব্যবহার করতে পারবেন বলে জানান ন্যান্সি।

নেত্রকোণার জেলা প্রশাসক মঈনউল ইসলাম জানান, কণ্ঠশিল্পী ন্যান্সি তার বাড়িটি ব্যবহারের কথা জানিয়েছেন। প্রয়োজন হলে আমরা তা কাজে লাগাবো।